সরকারি ঘোষণার বিরোধিতায় নামল বাগরাকোটের একটি সংগঠন

#মালবাজার: রাজ্য সরকার বিভিন্ন চাবাগান এলাকায় বসবাসকারী  মানুষের জন্য ৫ ডেসিমাল জমি ধার্য করেছে। ইতিমধ্যেই জমি জরিপ সহ অন্যান্য প্রক্রিয়া চালু হয়েছে। সরকারি ঘোষণার  প্রতিবাদে সরব হলো বাগ্রাকোটয়ের  বিভিন্ন সংগঠন। এদিন সাংবাদিক বৈঠক করে সংগঠন এর নেতারা জানান, রাজ্য সরকারে ৫ ডিসিমেল জমি সংক্রান্ত নির্দেশ, বন্ধ করতে হবে। সরকারের এই নির্দেশ চা শ্রমিকসহ কেউ মানবে না।
বাগ্রাকোট এর ভানু ময়দানে সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত হয় বাগ্রাকোট এর সামাজিক সংগঠন অগোস,আদিবাসী সম্প্রদায়ের মানুষ,  প্রাত্তন সেনা কর্মি থেকে সাধারনত মানুষ।  সকলের বক্তব্য বহু বছর ধরে চাবাগান এলাকায় মানুষেরা বসবাস করে আসছে। তখন থেকে সেইসব জায়গা তাদেরই। তবে বর্তমান সরকার এক বিজ্ঞপ্তি জারি করে চাবাগান এলাকায় বসবাসকারিদের জন্য ৫ ডেসিমেল জমি ধার্য করেছে।
সরকারে এই নির্দেশ কেউ মানবে না। ৫ ডেসিমেল জমিতে একটি ঘরও ঠিকঠাক হবে না। পাশাপাশি চাশ্রমিকদের গরু ছাগল রাখার জায়গাও থাকবে না। তারা তাদের জমিতে কৃষিকাজ করতে পারবেনা। সরকারে এই নির্দেশ শ্রমিকেরা মানবে না। তার প্রতিবাদের এই সাংবাদিক সম্মেলন বলে জানায় সংগঠনের সদস্যরা। সরকার অবিলম্বে এই নির্দেশ বন্ধ না করলে আন্দলোনে যাবে সব চাবাগানের শ্রমিকেরা, দাবি সংগঠনগুলির।
News Britant
Author: News Britant

Leave a Comment

Choose অবস্থা