News Britant

Tuesday, September 27, 2022

দারিভিট কাণ্ডে দুই ছাত্রের মৃত্যুর চার বছর অতিক্রান্ত

Listen

( খবর টি শোনার জন্য ক্লিক করুন )

#ইসলামপুর: বিজেপি রাজেশ ও তাপসের মৃত্যু নিয়ে নোংরা রাজনীতি করছে বলে অভিযোগ রাজেশ ও তাপসের বন্ধু নরেন শিকারীর। যদিও সিবিআই তদন্ত নিয়ে বিজেপির উপরে আস্থা রাখছেন রাজেশ ও তাপসের মা এবং বাবা।উল্লেখ্য, গত ২০১৮ সালে ২০ সেপ্টেম্বর দাড়িভিট স্কুলে শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে আন্দোলন শুরু করে স্কুলের পড়ুয়ারা। বিক্ষোভ চলাকালীন আচমকা পুলিশের সাথে খন্ড যুদ্ধ বাধে। এই ঘটনায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়ে স্কুল চত্ত্বরে।

এই ঘটনায় গুলি বিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় রাজেশ ও তাপসের এবং একজন ছাত্র পায়ে গুলি লেগে জখম হয়। এ নিয়ে বিজেপির প্রথমসারির নেতৃত্ব থেকে শুরু করে অন্যান্য স্থানীয় নেতৃত্ব পরিবারের পাশে দাঁড়িয়ে আন্দোলনে নামেন। এবং পরিবারকে সিবিআই তদন্ত দাবির জন্য আশ্বাস দেন বিজেপি নেতৃত্বরা।  সেই দিনটিকে ভাষা দিবস হিসাবে ডাক দিয়েছিল এ বি ভি পি। এদিন সারা রাজ্যের পাশাপাশি রাজেশ ও তাপসের মৃত্যুতে ভাষা দিবস উদযাপন করল তারা।

মঙ্গলবার ইসলামপুর থানার দাড়িভিট এলাকায় রাজেশ ও তাপসের ছবিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানো হয়। এছাড়া এই দিনকে স্মরণ করে বিজেপির পক্ষ থেকে রক্তদান শিবিরেরও আয়োজন করা হয় দাড়িভিট এলাকায়।অন্যদিকে বিজেপি রাজেশ ও তাপসের মৃত্যু নিয়ে নোংরা রাজনীতি করছে বলে অভিযোগ রাজেশ ও তাপসের বন্ধু নরেন শিকারীর। তিনি বলেন, প্রথম থেকেই বিজেপি নেতৃত্বরা রাজেশ ও তাপসের মৃত্যু নিয়ে আন্দোলন শুরু করে। বড়সড় নেতারা এই এলাকায় উপস্থিত হয়ে শুধু আশ্বাস দিয়েছেন বলে অভিযোগ।  

চার বছর পেরিয়ে গেলেও এখনো পযন্ত এই ঘটনার কোনও সঠিক তদন্ত হয়নি। তারা যে শুরু থেকেই সিবিআই তদন্তের দাবি জানিয়ে আসছেন  সেটাও এখনও পর্যন্ত হয়নি বলে অভিযোগ। এবং বিজেপি এটা নিয়ে শুধু নোংরা রাজনীতি করেছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।যদিও এখনো বিজেপির উপরেই আশ্বাস রেখেছেন রাজেশ সরকার ও তাপস বর্মনের পরিবার। মৃত তাপস বর্মনের মা মঞ্জু বর্মনের অভিযোগ রাজ্য সরকার তাদেরকে সিবিআই তদন্তের নির্দেশ দিচ্ছেন না। তবে বিজেপির পক্ষ থেকে তাদেরকে আশ্বাস দেওয়া হয়েছে দুই এক সপ্তাহের মধ্যে সিবিআই তদন্ত পাবেন বলে জানিয়েছেন তিনি।

অন্যদিকে বিজেপির জেলা সভাপতি বাসুদেব সরকার বলেন, শুরু থেকেই তাপস ও রাজেশের বিচারের জন্য আইনি লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন। এবং এই মামলাটি হাইকোর্টে বিচারাধীন অবস্থায় পড়ে রয়েছে। এবং আগামী হাই শুনানিতে এই মামলার কিছু একটা বিচার হবে বলে আশাবাদী তিনি।

Leave a Comment