News Britant

Friday, January 27, 2023

পৌর এলাকার নিরলসভাবে কাজ করে যাওয়া করোনা যোদ্ধা সুপ্রতিম দাস

Listen

( খবর টি শোনার জন্য ক্লিক করুন )

#মালবাজারঃ বর্তমানে গোটা বিশ্বে করোনা ভাইরাস নামের এক অদৃশ্য শত্রুর বিরুদ্ধে সবাই লড়ছে। এই যুদ্ধের প্রথম সারিতে রয়েছেন ডাক্তার, নার্স, স্বাস্থ্যকর্মী, পুলিশ, সাফাই কর্মীরা। রাজ্যের অন্যান্য এলাকার মতো ডুয়ার্সের মালবাজার শহরে গত ৫ মাস ধরে করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন করোনা যোদ্ধারা। শহরে এই যুদ্ধের প্রথম সারিতে রয়েছেন মাল পৌরসভার স্বাস্থ্য বিভাগের কোওর্ডিনেটর সুপ্রতিম দাস। শ্রী দাস মাল পৌরসভার কম্পিউটার এসিস্ট্যান্ট পদে রয়েছেন। পদটি অস্থায়ী বেতন বেশি নয়। বাড়িতে স্ত্রী পুত্র ও মা রয়েছে।

করোনা যুদ্ধ শুরু হতেই পরিবার ছেরে উদিচি কম্যুনিটি হলে একটি ঘরে থাকছেন আর করোনা পরিস্থিতি সামলাচ্ছেন। মাল পৌরসভার স্বাস্থ্য বিভাগে ১ জন ডাক্তার, ১ জন সুপারভাইজার ও ১৫ জন অনারারি হেলথ ওয়ার্কার রয়েছে। সারা বছর ম্যালেরিয়া, ডেঙ্গু প্রতিরোধে কাজ করা। ১৫ টি ওয়ার্ড ঘুরে মানুষকে সচেতন করা দায়িত্ব এদের। এদের পরিচালনার দায়িত্ব সুপ্রতিম বাবুর উপর। করোনা পরিস্থিতি শুরু হতেই কাজ বেড়ে গেছে।

দিনরাত এক করে করোনা বিষয়ে সমস্ত তথ্য বিভিন্ন দপ্তরে পাঠানো, নানান তথ্য আপলোড করা, সাংবাদিকদের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করার কাজের পাশাপাশি সংক্রমনের খবর আসার সাথে সাথেই সংক্রমিতের বাড়িতে ছুটে যাওয়া। কর্মীদের নিয়ে সেই বাড়িকে কন্টেনমেন্ট জোন করা। সংক্রমিতকে সেভ হোম বা কোভিদ হাসপাতালে পাঠানোর ব্যবস্থা করার মতো কাজ গুলি প্রতিদিন নিরলসভাবে করে চলছেন। এমনকি দেখা গেছে সংক্রামিত ব্যক্তির জন্য এম্বুলেন্স নিয়ে পৌঁছে গেছেন।

সেভ হোমে থাকা সংক্রমিতদের সাথে ফোনে যোগাযোগ করে তাদের মনোবল বাড়াতে ভোকাল টনিক পর্যন্ত দিচ্ছেন। তার এই কাজের জন্য শহরের কয়েকটি সংস্থা তাকে বিশেষ সন্মান জানিয়েছেন। মাল পৌরসভার প্রাক্তন বিরোধী দলনেতা তথা বর্তমান পৌর বোর্ডের ১৪ নম্বর ওয়ার্ডের আহ্বায়ক সুপ্রতিম সরকার তার এই কাজের প্রসংশা করেছেন। বর্তমান পৌর বোর্ডের প্রশাসক স্বপন সাহা জানান, সত্যি ওর কাজ প্রসংশাযোগ্য।

 

News Britant
Author: News Britant

Leave a Comment