News Britant

Saturday, September 24, 2022

করোনা থাবা বসিয়েছে ফেরিওয়ালাদের রোজগারে, উদ্বেগে দিন কাটছে তাদের

Listen

( খবর টি শোনার জন্য ক্লিক করুন )

#ইসলামপুর: করোনা ভাইরাসের কারণে ফেরিওয়ালাদের বেচা কেনা প্রায় বন্ধ। তাদের ধারে কাছে যেতে চাচ্ছে না গ্রামের মানুষ। তাই হচ্ছে না তাদের বেচাকেনা। মাথায় হাত ফেরিওয়ালাদের। প্রতিদিন চোপড়া ব্লকের বিভিন্ন গ্রামে গ্রামে ঘুরে কাপড় বিক্রি করতে বের হলেও ফেরিওয়ালা দের কাছ থেকে কেউ কেনাকাটা করছে না। এর জেরে ভিন জেলা থেকে আসা ওই ফেরিওয়ালা দের রোজগারে বাধা পড়েছে। তাদের কথায় চোপড়ায় প্রায় ৫০ জনের মত ফেরিওয়ালা রয়েছে। তারা মালদা জেলার বাসিন্দা।

ফেরিওয়ালা সাবির মিয়া, ইকবাল মিয়া ও রুবেল মিয়া জানান, আগে আমরা চোপড়া ব্লকের বিভিন্ন গ্রামে গ্রামে ঘুরে কাপড় বিক্রি করতাম এবং বেচাকেনাও আমাদের ভাল হত। এই পেশার উপরেই আমাদের সংসার চলত। কিন্তু এর মধ্যে লকডাউনের কারনে কয়েক মাস বাড়িতে বসে থেকে চরম সংকটে পড়তে হয়েছে। বর্তমানে লকডাউন শিথিল হওয়ায় এখন পুনরায় এই ব্যাবসা শুরু করেও হতাশ তারা। কারণ সকাল থেকে কেউ সাইকেল বা  কেও মোটর সাইকেলে করে কাপড় নিয়ে গ্রামে গ্রামে ঘুরতে গেলে করোনা আতঙ্কের কারনে ফেরিওয়ালাদের ধারে কাছেও আসছেনা কেও।

তারা আরও জানান, বেচাকেনা মোটেও হচ্ছে না। কোনো কোনো দিন দুশো থেকে চারশ টাকা বেচাকেনা হয়, আবার কোনো দিন আমরা বহনী টাও করতে পারি না, বাইকের তেল খরচও ওঠেনা। ভাড়া ঘরে থাকতে হয়, মাস গেলেই ঘর ভাড়া এবং বাইকের কিস্তি  দিতে হয়। এমন অবস্থায় আমরা খাবো কি, আর কিভাবে চলবে সংসার? এর উত্তর জানা নেই তাঁদের। সামনেই পুজো। কিন্তু এবার যে পুজোতেও তেমন সুবিধা হবেনা তা বুঝে গিয়েছেন তারা।

 

News Britant
Author: News Britant

Leave a Comment