মেধাবী ছাত্রীর মৃত্যুর ঘটনায় তদন্তের প্রথমেই অভিযুক্তকে হোস্টেল খালির নির্দেশ

#মালবাজার: যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী ছাত্রীর অস্বাভাবিক মৃত্যুর তদন্তের প্রথম দিনেই মূল অভিযুক্ত সুরজ ঝা কে হোস্টেল খালি করার নির্দেশ দিয়েছে কর্তৃপক্ষ। এক মাসের মধ্যে তদন্ত সম্পূর্ণ করার লক্ষ্যে কাজ শুরু করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তবর্তী অভিযোগ অনুসন্ধান কমিটি। অপরদিকে বিষয়টি নিয়ে মানবাধিকার কমিশন রিপোর্ট তলব করেছে।
উল্লেখ্য ১৮ ই জানুয়ারি মালবাজার শহরের ১ নম্বর ওয়ার্ডের নিজের দাদুর বাড়ি থেকেই ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার হয় যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীর। পরিবারের সদস্যদের প্রথম থেকেই অভিযোগ, মৃতার সাথে হোস্টেলে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করা হতো। মাল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে ছাত্রীর পরিবার। একই সাথে নড়েচড়ে বসে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।
বুধবার থেকে তদন্ত শুরু করেছে যাদবপুরের অন্তর্বতীকালীন অভিযোগ অনুসন্ধান কমিটি। এফ এস ডি সংগঠনের মুখপাত্র জিসু দেবনাথ বলেন, এক মাসের সময়সীমা নিয়েছে তদন্ত কমিটি, যদি কেউ তদন্ত কে প্রভাবিত করার চেষ্টা করে তবে আমরা বৃহত্তর আন্দোলনে নামবো।
অন্যদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্টার স্নেহ মঞ্জু বসু বলেন, মূল অভিযুক্ত কে হোস্টেলের ঘর খালি করতে বলা হয়েছে, তদন্ত সম্পূর্ণ নিরপেক্ষ ভাবেই করা হবে। উল্লেখ্য, যাদবপুরের ছাত্রীর অস্বাভাবিক মৃত্যুর বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় কি ভূমিকা পালন করছে সে বিষয়ে আগামী ১২ তারিখের মধ্যে একটি রিপোর্ট তলব করেছে রাজ্য মানবাধিকার কমিশন।
অভিযুক্তদের কি হয়? তা জানার জন্য মুখিয়ে আছে মালবাজারের মানুষ।
News Britant
Author: News Britant

Leave a Comment

Choose অবস্থা