নদী থেকে অবৈধ ভাবে বালি- পাথর সংগ্রহে নেমে হরপা বানে ভেসে গেল ট্যাক্টর

#মালবাজার: বর্ষার মাঝে নদী থেকে অবৈধ ও অবৈঞ্জানিক ভাবে বালি পাথর সংগ্রহে নেমে হরপা বানে আটকে গেল ট্যাক্টর। পরে স্থানীয়রাই অন্যান্য ট্যাক্টর ও লোকজন লাগিয়ে টেনে তোলে ট্যাক্টরটিকে। মঙ্গলবার সকালে ঘটনাটি ঘটেছে ডুয়ার্সের মাল ব্লকের কুমলাই গ্রাম পঞ্চায়েতের কুমলাই নদীতে।
জানাগেছে, কুমলাই নদী থেকে প্রতিদিন বেশ কিছু ট্যাক্টর প্রয়োজনীয় সরকারি অনুমতি ছাড়াই  বালি সংগ্রহ করে মালবাজার শহর সহ আশেপাশের এলাকায় নির্মাণ কাজে সরবরাহ করে। প্রশাসনের সামনে দিয়ে প্রতিদিন এই অবৈধ কাজ চলে। সোমবার রাতে মালবাজার এলাকায় প্রবল বর্ষন হয়। যার ফলে প্রতিটি নদীতে জল বেড়েছে। এই রকম পরিবেশে মঙ্গলবার সকালে এক ট্যাক্টার চালক তার ট্যাক্টর নিয়ে বালি সংগ্রহের উদ্দেশ্যে নদীতে নামে।
আচমকা হরপা বানে ট্যাক্টরটি জলের মাঝে আটকে গিয়ে খানিকটা ভেসে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন ও অন্যান্য ট্যাক্টর টেনে সেটিকে উদ্ধার করে। খবর পেয়ে মাল থেকে ভুমি ও ভুমিরাজস্ব দপ্তরের কর্মীরা ঘটনাস্থলে পৌছান। কিন্তু, তার আগেই ট্যাক্টর চালক তার ট্যাক্টর নিয়ে পালিয়ে যায় বলে স্থানীয়রা জানান।
এনিয়ে মালের ভুমিরাজস্ব আধিকারিক প্রীতি লামা বলেন, ট্যাক্টরটিকে খোজা হচ্ছে তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। বে- আইনি এই কারবারের বহু দিন থেকে সোচ্চার পরিবেশ প্রেমীরা। মালের পরিবেশ প্রেমী স্বরূপ মিত্র বলেন, বর্ষায় নদীতে নেমে এভাবে বালিপাথর সংগ্রহ করা উচিত নয়। যে কোন সময় হরপা বানে ভেসে যেতে পারে। প্রান হানীও হতে পারে। তাছাড়া এজাতীয় ট্যাক্টর গুলির বৈধ অনুমতি নেই। প্রশাসনের কড়া ব্যবস্থা নেওয়া উচিত।
News Britant
Author: News Britant

Leave a Comment

Choose অবস্থা